web stats রোহিঙ্গারা পোপ ফ্রান্সিসকে মুসলিম নেতা মনে করেন !

শনিবার, ৮ মে ২০২১, ২৫ বৈশাখ ১৪২৮

রোহিঙ্গারা পোপ ফ্রান্সিসকে মুসলিম নেতা মনে করেন !

ক্যাথলিক খ্রিস্টানদের প্রধান ধর্মগুরু পোপ ফ্রান্সিস সম্পর্কে কী ভাবছেন বাংলাদেশে আশ্রিত রোহিঙ্গারা? এমন প্রশ্নের জবাব খুঁজতে গিয়ে পোপ সম্পর্কে রোহিঙ্গাদের চমকপ্রদ ভাবনার কথা জানা গেছে।

পোপের মাথায় টুপি দেখে অনেক রোহিঙ্গা ধারণা করছেন, তিনি একজন মুসলিম নেতা। কেউ কেউ মনে করেন- তিনি আসলে একজন বাংলাদেশি রাজনীতিক। আবার কারও ধারণা- পোপ যুক্তরাষ্ট্রের বিখ্যাত কোনো ব্যক্তি বা ধনাঢ্য রাজা।

সোমবার থেকে চার দিনের সফরে সংঘাত পীড়িত মিয়ানমারে অবস্থান শেষে বৃহস্পতিবার বিকালে তিন দিনের সফরে বাংলাদেশ আসছেন পোপ ফ্রান্সিস। ঢাকায় সফরকালে শুক্রবার পোপ বাংলাদেশে আশ্রিত একদল রোহিঙ্গা শরণার্থীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন।

রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গাদের ওপর পরিচালিত নিষ্ঠুরতার বর্ণনা তাদের কাছ থেকে সরাসরি শোনবেন তিনি। পোপের ঐতিহাসিক সফরকে ঘিরে মিয়ানমার ও বাংলাদেশের নাগরিকদের মধ্যে তার প্রতি প্রচণ্ড আগ্রহ তৈরি হয়েছে। দুই দেশের সংবাদমাধ্যমে ফলাও করে পোপের সফরের খবর প্রচার করা হচ্ছে।

তবে যেই রোহিঙ্গাদের ঘিরে পোপের সফর নিয়ে এত আগ্রহ তৈরি হয়েছে, সেই তাদের অনেকের মনেই প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে- পোপ কে? ফরাসি সংবাদ সংস্থা এএফপির পক্ষ থেকে মিয়ানমার সীমান্তসংলগ্ন বাংলাদেশি শরণার্থী ক্যাম্পগুলোতে পোপের কথা জানতে চাওয়া হয়েছিল।

কিন্তু এই খ্রিস্টান ধর্মগুরুর কথা উল্লেখ করতেই কারও মুখ ফ্যাকাসে হয়ে যাচ্ছে, কেউ ভ্রূ চমকাচ্ছে। এএফপি জানিয়েছে, পোপের একটি ছবি দেখিয়ে রোহিঙ্গাদের কাছে জানতে চাওয়া হয়- ছবির এই ব্যক্তি কে।

জবাবে রোহিঙ্গাদের অনেকেই অনুমান করে বলেন, ছবির এই ব্যক্তি যুক্তরাষ্ট্রের একজন বিখ্যাত ব্যক্তি (সেলিব্রেটি) বা ধনাঢ্যশালী রাজা। কারও মতে, পোপ আসলে বাংলাদেশের একজন রাজনীতিক।

আবার পোপের মাথায় টুপি দেখে অনেকেই ধারণা করছেন, তিনি কোনো মুসলিম নেতা হতে পারেন। এ বিষয়ে জানতে চাওয়া হয়েছিল ৪২ বছর বয়সী রোহিঙ্গা শরণার্থী নুরুল কাদেরের কাছে। তিনি বলেন, আমার মনে হয়, তাকে সংবাদে দেখেছি। কিন্তু তিনি কী করেন? তিনি কী গুরুত্বপূর্ণ কেউ?

এই বিভাগের আরো খবর


WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com