web stats ডোমারে চা আবাদ সম্প্রসারনে কর্মশালা

বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০, ৫ কার্তিক ১৪২৭

ডোমারে চা আবাদ সম্প্রসারনে কর্মশালা

আতাউর রহমান কাজল, বিশেষ প্রতিনিধি, মৌলভীবাজার: উত্তরবঙ্গের নীলফামারী জেলার ডোমার উপজেলায় ক্ষুদ্রায়তন চা আবাদী সম্প্রসারণের লক্ষ্যে বাংলাদেশ চা বোর্ড কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন “এক্সটেনশন অব স্মল হোল্ডিং টি কালটিভেশন ইন নর্দান বাংলাদেশ” শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় ডোমার উপজেলা প্রশাসনের পৃষ্ঠপোষকতায় গতকাল ২০ ফেব্রুয়ারি সকাল ১১ টায় এক বর্ণাঢ্য র‍্যালী বের হয়। র‍্যালীটি উপজেলা চত্বর থেকে বের হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। শ্রীমঙ্গলে অবস্হিত বাংলাদেশ চা বোর্ড সুত্রে এ তথ্য জানাা গেছে।

র‍্যালি শেষে উপজেলা প্রশাসন মিলনায়তনে এক কর্মশালার আয়োজন করা হয়। উক্ত কর্মশালায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যুগ্ম সচিব ও বাংলাদেশ চা বোর্ডের সদস্য মোঃ গোলাম মাওলা।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ড. এ কে এম রফিকুল হক, পরিচালক (ভারপ্রাপ্ত), প্রকল্প উন্নয়ন ইউনিট, বাংলাদেশ চা বোর্ড, শ্রীমঙ্গল।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উম্মে ফাতিমা, উপজেলা নির্বাহী অফিসার, ডোমার, নীলফামারী।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের স্বাগত বক্তব্য ও মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন বাংলাদেশ চা বোর্ডের উর্ধতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ও নর্দান বাংলাদেশ প্রকল্পের প্রকল্প পরিচালক ড. মোহাম্মদ শামীম আল মামুন।

প্রশিক্ষণ কর্মশালায় উপজেলা পর্যায়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাবৃন্দ, জনপ্রতিনিধি, মসজিদের ইমাম, সফল চা চাষি ও চা চাষে আগ্রহী কৃষকবৃন্দ উপস্হিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি তাঁর বক্তব্যে বলেন যে, উত্তরবঙ্গের জমি সিলেটের তুলনায় বেশি উর্বর ও চাষিরা চা চাষ করে অল্প সময়ে বেশি লাভবান হবেন।

কর্মশালায় আরও বক্তব্য রাখেন উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জাফর ইকবাল এবং ওসি (তদন্ত) বিশ্বদেব রায় প্রমুখ।

দিনব্যাপী কর্মশালায় চা চাষের লাভজনক দিক ও চা চাষ পদ্ধতির বিভিন্ন বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয় এবং হাতে কলমে এ বিষয়ে প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়। এতে ডোমার উপজেলার ৫০ জন নবীন চা চাষিরা অংশগ্রহণ করেন। উক্ত কর্মশালার মাধ্যমে নীলফামারী উপজেলার ডোমার উপজেলায় চা চাষের এক নতুন দিগন্ত উন্মোচন হবে বলে আশা করেন সংশ্লিষ্টরা।

এই বিভাগের আরো খবর


WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com