web stats ওমরাহ্ করতে মসজিদে নববীতে সাকিব ও নাফীস

শনিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২০, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

ওমরাহ্ করতে মসজিদে নববীতে সাকিব ও নাফীস

বিপিএলের ডামাডোল শেষ, খেলছেন না জাতীয় লিগেও। আর ওইদিকে বেশ কিছু দিন থেকেই ভাবছেন ওমরাহ্ করতে যাবেন। যা ভাবা তাই কাজ। স্বপরিবারে সৌদি আরবে উড়ে গেলেন বাংলাদেশ দলের অন্যতম সেরা ওপেনার শাহরিয়ার নাফীস। সেখান থেকে মদিনায়। গেলেন হজরত মুহাম্মদ (সাঃ) এর নিজ হাতে তৈরি মসজিদে নববীতেও। আর মসজিদে নববীতে গিয়েই চমকেই গেলেন নাফীস। কারণ দেখা হলো জাতীয় দলের সতীর্থ সাকিব আল হাসানের সঙ্গে।

গত ১৬ ডিসেম্বর ওমরাহ্ করতে সৌদি আরব যান নাফীস। সাকিব তখনটি-টেন ক্রিকেট লিগ খেলছেন দুবাইয়ে। লিগ শেষ হয়েছে। সাকিবের দল কেরালা কিংসও চ্যাম্পিয়ন। তবে দেশে ফেরার তাড়া নেই। কারণ জাতীয় দলের ক্যাম্প বসবে ২৭ ডিসেম্বর থেকে। ততদিন পর্যন্ত বিশ্রাম পেয়েছেন সাকিবরা। তাই এ ছুটিতে সৌদি আরবে উড়ে গেলেন সাকিবও। সেখানেই দেখা হয় দেশের সেরা দুই তারকার।

এদিকে ক’দিন আগেই বাংলাদেশ দলের টেস্ট সংস্করণের নেতৃত্ব ফিরে পেয়েছেন সাকিব। এর আগে ফিরে পেয়েছেন টি-টুয়েন্টির নেতৃত্বও। আর মাঠেও দারুণ খেলছেন।

বিপিএলে তার দল ঢাকা ডায়নামাইটস হয়েছে রানার্স আপ। সব মিলিয়ে সময়টা বেশ ভালোই যাচ্ছে সাকিবের। তাই সুযোগে প্রিয় নবীর হাতে গড়া মসজিদটা দেখতেই উড়ে যান বিশ্বসেরা এ অলরাউন্ডার।

গুরুত্বের দিক থেকে মসজিদুল হারামের (মক্কা) পর মসজিদে নববীর স্থান। আর গুরুত্বপূর্ণ ধর্মীয় স্থান বলেই হজ্জ ও ওমরাহর আগে বা পরে এই মসজিদে নামাজ আদায় করেন হাজিরা।

সে কারণেই মসজিদে নববীতে গিয়েছেন নাফীস ও সাকিব।

মুহাম্মদ (সাঃ) হিজরত করে মদিনায় আসার পর তিনি এই মসজিদ নির্মাণ করেন। উপহার হিসেবে মসজিদের জায়গা পাওয়ার সুযোগ থাকলেও কিনে নিয়েই মসজিদ বানান তিনি। নিজেও নির্মাণকাজে অংশ নিয়েছিলেন। তখন মূলত খেজুর গাছের খুঁটি, খেজুর পাতা ও কাদার আস্তরণ দিয়ে এ মসজিদ তৈরি করা হয়। পরবর্তীকালে মুসলিম শাসকরা মসজিদ সম্প্রসারণ ও সৌন্দর্যবর্ধন করেন।

এই বিভাগের আরো খবর


WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com