web stats আমি দর্শকের ভালবাসা পেয়েই নুপুর থেকে শাবনূর হতে পেরেছি : শাবনূর

বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০, ৫ কার্তিক ১৪২৭

আমি দর্শকের ভালবাসা পেয়েই নুপুর থেকে শাবনূর হতে পেরেছি : শাবনূর

দেখতে দেখতে ৩৭টি বসন্ত পার করলেন দেশীয় চলচ্চিত্রের উজ্জ্বল তারকা শাবনূর। আজ ১৭ ডিসেম্বর ৩৮ বছরে পা দিলেন তিনি। তবে এবারের জন্মদিন নিয়ে বিশেষ কোনো পরিকল্পনা নেই তার। কারণ, বর্তমানে তার মা এবং ছোটভাই-বোন অষ্ট্রেলিয়ায়। মা এবং ভাই-বোন ছাড়া নিজের জন্মদিন উদযাপনের কোনো আগ্রহ নেই বলে জানালেন তিনি।

শাবনূর বলেন, ছোটকাল থেকে মার সঙ্গে নিজের জন্মদিন পালন করছি। এমনকি গত বছররেও অস্ট্রেলিয়ায় পরিবারের সবাই মিলে জন্মদিন উদযাপন করেছি। কিন্তু এবার কেউ নেই। তাই জন্মদিন নিয়ে কোনো পরিকল্পনাও নেই। তবে জন্মদিনে মা আমাকে টেলিফোনে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। এটা আমার এবারের জন্মদিনের সবচেয়ে বড় উপহার। তাছাড়া কিছুদিন আগে আমি বেশ অসুস্থ ছিলাম। এখনও পুরোপুরি সুস্থ হইনি। সব মিলিয়ে জন্মদিনে কোনো আয়োজন করছি না।

শাবনূর বলেন, আমার জন্য সবাই দোয়া করবেন, আমি যেন সুস্থ আর সুন্দর থাকতে পারি। সবার ভালবাসায় আমি নুপুর থেকে আজকের শাবনূর হতে পেরেছি। আমি আমার জীবনে যা কিছু পেয়েছি, তার সবই চলচ্চিত্র থেকে। তাই চলচ্চিত্রের সবাইকে নিয়ে আগামীতে ভালো থাকতে চাই। ভবিষ্যত’টা আরো সুন্দর করতে চাই।

১৯৭৯ সালের ১৭ ডিসেম্বর যশোর জেলার শার্শা উপজেলার নাভারণে জন্মগ্রহণ করেন শাবনূর। পারিবারিকভাবে তার নাম রাখা হয় কাজী শারমিন নাহিদ নূপুর। চলচ্চিত্রের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার পরে তার প্রথম সিনেমার নির্মাতা এহতেশাম তার নাম রাখেন শাবনূর। শাবনূর শব্দের অর্থ রাতের আলো। শাবনূরের পিতার নাম শাহজাহান চৌধুরী। তিন ভাই বোনের মধ্যে সবচেয়ে বড় তিনি। শাবনূরের বোন ঝুমুর এবং ভাই তমাল দুজনেই নিজ নিজ পরিবারসহ্ অস্ট্রেলিয়ায় বসবাস করছেন।

প্রখ্যাত চলচ্চিত্রকার এহতেশাম পরিচালিত চাঁদনী রাতে সিনেমার মাধ্যমে চলচ্চিত্রে আগমন শাবনূরের। প্রথম ছবি ব্যর্থ হলেও পরে সালমান শাহ’র সাথে জুটি গড়ে ব্যাপক জনপিয়তা অর্জন করেন। তারপর আর পেছনে তাকাতে হয়নি। একের পর একে সুপারহিট ছবি উপহার দিয়ে অতি অল্প সময়েই ঢাকাই সিনেমার অপরিহার্য নায়িকা হিসেবে বিবেচিত হন। এখনো অপ্রতিরোধ্য শাবনূর।

এই বিভাগের আরো খবর


WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com