counter বিনাশর্তে লন্ডনে যেতে চান খালেদা জিয়া

সোমবার, ২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১১ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বিনাশর্তে লন্ডনে যেতে চান খালেদা জিয়া

ডেস্ক নিউজ :  উন্নত চিকিৎসার জন্য লন্ডনে যেতে চান বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। এ ক্ষেত্রে শর্ত দেওয়া হয়েছে সরকারের পক্ষ থেকে। তবে বিনা শর্তেই সরকারের কাছ থেকে সে অনুমতি পেতে চায় বিএনপি। দলীয় নেতাদের ভাষ্য, নানা শর্তের কারণে আটকে আছে খালেদা জিয়ার লন্ডন যাওয়া। এ নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে আলাপ-আলোচনা চলছে বলেও জানা গেছে। ৭৫ বছর বয়সী খালেদা জিয়া ডায়াবেটিস এবং চোখ ও আর্থ্রাইটিস সমস্যায় ভুগছেন।

এ বিষয়ে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর শুক্রবার (১০ জুলাই) এক ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বলেছেন, খালেদা জিয়া নানান শারীরিক সমস্যায় ভুগছেন। উন্নত চিকিৎসার জন্য তার বিদেশে যাওয়া প্রয়োজন। তবে বিদেশে যেতে পারবেন না- এমন শর্তেই সরকার তাকে জামিন দিয়েছে। অন্যদিকে দেশের হাসপাতালগুলোরও বেহাল অবস্থা। এর মধ্যে নতুন করে যুক্ত হয়েছে করোনা মহামারি।

মির্জা ফখরুল আরও বলেন, বিদেশে না যাওয়ার জন্য খালেদা জিয়াকে শর্ত দেওয়া হয়েছে। কিন্তু তার বিদেশে চিকিৎসাই এখন বেশি প্রয়োজন।

খালেদা জিয়ার বড় বোন সেলিনা ইসলাম বলেন, উন্নত চিকিৎসার জন্য খালেদা জিয়ার বিদেশে যাওয়া প্রয়োজন। তবে লন্ডনে যাওয়ার ব্যাপারে সরকারের কাছে আবেদন করার চূড়ান্ত কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।

দলের নির্ভরযোগ্য সূত্র জানায়, বার্ধক্যজনিত নানা রোগে আক্রান্ত খালেদা জিয়ার উন্নত চিকিৎসা করাতে জামিনের জন্য আইনি লড়াই চালানো হয়েছিল। তাতে সফল না হওয়ায় শেষ পর্যন্ত ‘সমঝোতা’র মাধ্যমে ও শর্তসাপেক্ষেই জামিন নেওয়া হয়েছিল। করোনা মহামারির মধ্যে সরকারের সেসব শর্ত মেনে নেওয়া ছাড়া কোনো বিকল্পও ছিল না তখন। বর্তমানে খালেদা জিয়া বাসায় থেকেই চিকিৎসা নিচ্ছেন।

দলীয় সূত্র জানায়, বিদেশে না যাওয়ার শর্ত দিয়ে জামিন নিলেও এখন তা পুনর্বিবেচনা করার দাবি জানানো হচ্ছে পরিবার ও দলের পক্ষ থেকে। বিষয়টি নিয়ে সরকারের উচ্চপর্যায়ের সঙ্গে তাদের যোগাযোগ চলছে। এক্ষেত্রে সরকারের পক্ষ থেকে নানা শর্ত দেওয়া হচ্ছে। বিশেষ করে লন্ডনে থাকা অবস্থায় রাজনৈতিক বক্তব্য-বিবৃতি না দেওয়া, সভা-সমাবেশে যোগদান থেকে বিরত থাকা, নেতাকর্মীদের সঙ্গে সাক্ষাৎ না করা, বিদেশিদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ থেকে বিরত থাকা ইত্যাদি। তবে এসব শর্ত মেনে লন্ডন যেতে রাজি হচ্ছেন না খালেদা জিয়া। শর্ত ছাড়াই যেতে চান তিনি।

এ বিষয়ে আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রী অ্যাডভোকেট আনিসুল হক বলেন, খালেদা জিয়াকে শর্ত সাপেক্ষে ছয় মাসের জামিনে মুক্তি দিয়েছে সরকার। এখন যদি তিনি বিদেশে যেতে চান তাহলে সরকারের অনুমতি লাগবে। এছাড়া আদালতে তার দুটি মামলার আপিল বিচারাধীন। তাতে জামিনের আবেদন করা হয়েছে। হয়তো আদালত খুললে তার শুনানি হতে পারে।

উল্লেখ্য, খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে ৩৭টি মামলা হয়েছে। এর মধ্যে ১৭টি মামলা বিচারের পর্যায়ে আছে। ২০১৮ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি থেকে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট ও জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলায় সাজা ভোগ করছেন খালেদা জিয়া। দুই মামলায় তার ১৭ বছরের সাজা হয়েছে।

এই বিভাগের আরো খবর