counter একতা কাপুর ও তার মা'কে ধর্ষণের হুমকি

শনিবার, ২৮শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১৪ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

একতা কাপুর ও তার মা’কে ধর্ষণের হুমকি

বিনোদন ডেস্ক :  ইউটিউবার বিকাশ পাঠক একতা কপূরকে ‘উচিত শিক্ষা’ দেওয়ার ‘ডাক’ দিয়েছেন। এই নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় বিতর্ক চলছে। একতা কাপূর নাকি ভারতীয় সেনাকে অপমান করেছেন। নিস্তার মেলেনি ক্ষমা চাওয়ার পরেও। প্রথমে একতার বিরুদ্ধে এফআইআর করা হয়। এর পর থেকে শুরু হয় লাগাতার ধর্ষণের হুমকি। তার ৭১ বছরের মা’ও ছাড় পাননি। ইউটিউবার বিকাশ পাঠক প্রকাশ্যে তাদের ‘উচিত শিক্ষা’ দেওয়ার ‘ডাক’ দিয়েছেন।

সপ্তাখানেক আগে ঘটনার সূত্রপাত। মেজর টিসি রাও সহ নেটাগরিকদের একাংশ অভিযোগ এনেছিলেন একতা কাপূরের প্রযোজনা সংস্থা এএলটি বালাজির ওয়েব সিরিজ ‘ট্রিপিল এক্স আনসেনসরড’-এ ভারতীয় সেনা এবং সেনাউর্দিকে অপমান করা হয়েছে। সেই ওয়েবসিরিজের একটি দৃশ্যে দেখানো হয়েছিল, স্বামী যখন সীমান্তে শত্রুপক্ষের মোকাবিলা করছেন তখন এক সেনাপ্রধানের স্ত্রী বাড়িতে অন্য পুরুষের সঙ্গে সঙ্গমে লিপ্ত। আর এই দৃশ্যেই গর্জে ওঠেন রাও। সংবাদ সংস্থার কাছে রাও মন্তব্য করেন একতার ওই সংস্থা’  ‘ভারতীয় সেনাবাহিনী এবং তাদের পরিবারের ভাবমূর্তি নষ্ট করছে।

এখানেই ঘটনার শেষ নয়। ইউটিউবার হিন্দুস্থানি ভাও ওরফে বিকাশ পাঠক ইনস্টাগ্রামে তার কুড়ি লক্ষ অনুরাগীর কাছে একতা এবং তার ৭১ বছরের মা’র বিরুদ্ধে ভারতীয় সেনাকে ‘অপমান’ করায় উচিত শিক্ষা দেওয়ার প্রস্তাব দেয়। একতার বিরুদ্ধে মোট গুরুগ্রাম, ইন্দোর সহ তিনটি জায়গায় পৃথক পৃথক ভাবে এফআইআরও দায়ের করা হয়।

এর পরেই ওই ওয়েব সিরিজের বিতর্কিত দৃশ্যগুলি বালাজির পক্ষ থেকে মুছে দেওয়া হয়। ওই সিরিজে এ কথাও জানান একতা ভারতীয় সেনাকে অপমান করার বা নিচু দেখানোর জন্য যে কোনও ইচ্ছা ছিল না ।

কিন্তু থামেনি বিতর্ক। একতা কাপূর টুইটার, ইনস্টাতে ক্রমাগত ধর্ষণের হুমকি পেতে থাকেন। আক্রমণ চলতে থাকে কদর্য ভাষায়। হিন্দুস্থানি ভাও সেই আগুনে ঘি ঢালতে থাকেন। সোশ্যাল মিডিয়ায় একতার বিরুদ্ধে একের পর এক ভিডিয়ো পোস্ট করতে থাকেন।

গতকাল  শোভা দে’র সঙ্গে একটি ইনস্টা লাইভ সেশনে সেই কথাই টেনে এনে একতা বলেন, “এই ভদ্রলোক (বিকাশ পাঠক) যিনি নিজেকে বছরের সেরা দেশ প্রেমিক বলে মনে করেন, সরাসরি ধর্ষণের হুমকি দিয়েছে। শুধু তাই নয় আমার ৭১ বছরের মা’কেও টেনে এনেছে। ওঁর কথামতো সেক্স খারাপ বাট রেপ ইজ ওকে? তাইতো?”  কাদা ছোড়াছুড়ি যেন  থামছেই না,  বিতর্ক, পাল্টা বিতর্ক চলছেই। হিন্দুস্থানি ভাওয়ের নাম হঠাৎ করেই টুইটারে ট্রেন্ড করছে।

এই বিভাগের আরো খবর



AllEscortAllEscort